Friday, 14 June 2013

মরনোত্তর চক্ষু দান

আমি আমার মরনোত্তর চক্ষু দান করেছি।
যদি এই চোখ দিয়ে কেউ তার প্রিয়জনকে দেখতে পায় যদি কোন মা তার সন্তানকে একটু দেখতে পায় কিংবা সন্তান তার মাকে। কেউ যদি দেখতে পায় এই মায়া ভরা নীলিমা আর সবুজের হাতছানি আর পৃথিবীর অপার সৌন্দর্য সেই আশায়।

আপনিও আপনার মরনোত্তর চক্ষু দান করুন।
আমি যেদিন আমার মরনোত্তর চক্ষু দান করে এসে বাড়িতে আমার মাকে জানালাম ২২বছর আগের সেই দিনের কথা আজও আমার চোখের সামনে স্পস্ট ভাবে উজ্জল হয়ে ভাসছে। আমার মা বলেছিলেন তুই দিতে গেলি কেন আমাকে কেন নিয়ে গেলি না? যা এখনি চল আমাকে নিয়ে, আমার চোখ দিয়ে আসবি, আরে আমি তোদের আগে চলে যাব কাজেই তোর চেয়ে আমার চোখ আগে কাজে লাগবে। লিখতে বসে আমার চোখ ভিজে কি বোর্ডও ভিজে যাচ্ছে। এমন মায়ের গর্ভে জন্মেছি বলে নিজেকে ভীষন ভাগ্যবান মনে হচ্ছে। আমার মা আজ আর এই পৃথিবীতে নেই। আজ থেকে ১২ বছর আগে ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে তিনি চলে গেছেন কিন্তু তিনি ক্যান্সারের রুগী ছিলেন বলে তার সেই আশা মেটাতে পারিনি।
এই পৃথিবীর সবাইকে আজ একটি অনুরোধ করব আপনি আপনার মরনোত্তর চক্ষু দান করে আপনার এই চোখ বাচিয়ে রাখুন। কাউকে এই চোখ দিয়ে এই পৃথিবী দেখার সুযোগ করে দিন যে চোখ দিয়ে আপনি এই পৃথিবী দেখছেন, আপনার প্রিয় জনের হাসি ভরা মুখ দেখছেন।

No comments:

Post a Comment

Thank you very much for your comments.